Monday , 26 July 2021
Home / খবর / দেশে ওটিটির বিশাল সম্ভাবনা রয়েছে : ফারুকী

দেশে ওটিটির বিশাল সম্ভাবনা রয়েছে : ফারুকী


ঢাকা, ০৫ জুলাই-  বাংলাদেশের শিক্ষিত মধ্যবিত্ত জনগোষ্ঠী ওটিটির গ্রাহক হবেন আর সেই সুযোগ কাজে লাগতে পারলে দেশে ওটিটির বিশাল সম্ভাবনা রয়েছে বলে মনে করেন খ্যাতিমান নির্মাতা মোস্তফা সরয়ার ফারুকী। সম্প্রতি এমন মন্তব্য করেছেন প্রথম বারের মতো ওটিটি প্ল্যাটফর্মে তাঁর পরিচালনায় ওয়েব সিরিজ মুক্তির অপেক্ষায় থাকা এই নির্মাতা।

আগামী ৯ জুলাই জি-ফাইভ গ্লোবালে মুক্তি পাবে মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর প্রথম ওয়েব সিরিজ ‘লেডিস অ্যান্ড জেন্টলম্যান’। আট পর্বের সিরিজটিতে নারী-পুরুষের সম্পর্কের জটিলতা, সমাজে নারীবিদ্বেষের মতো বিষয়গুলো উঠে এসেছে।

সেই বিষয়গুলো কী, সেটা মুক্তির আগেই বলতে চান না পরিচালক। ফারুকী জানিয়েছেন, ‘এই মুহূর্তে ওয়েব সিরিজটির গল্প নিয়ে বলব না। দর্শক পুরো সিরিজ দেখে নিজেদের মতো বার্তা নেবেন। ট্রেইলার দেখে তাঁরা একটা ধারণা নিয়েছেন। বাকিটুকু ওয়েব সিরিজ দেখেই বুঝতে পারবেন।’

সিরিজটিতে মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করেছেন আফজাল হোসেন ও তাসনিয়া ফারিণ। ট্রেইলার দেখে যতটা বোঝা গেছে, তা হলো, তাসনিয়া ফারিণ নারী হিসেবে সমাজে চলমান বেশ কিছু প্রতিবন্ধকতা মোকাবিলা করে এগিয়ে যাবেন।

সিনেমা ও টেলিভিশনের খ্যাতিমান নির্মাতা মোস্তফা সরয়ার ফারুকী কিছুটা দেরিতে ওয়েব প্ল্যাটফর্মে যুক্ত হলেন, এমন মনে হলেও অনেক দিন ধরে এই প্ল্যাটফর্মে কাজের কথা ভাবছিলেন এই নির্মাতা। জানালেন, ‘অনেক দিন থেকেই ভাবছিলাম ওটিটি প্ল্যাটফর্মে কাজ শুরু করব। কী করব, কোন কাজটা করব, কীভাবে করব, এসব নিয়ে অনেক দিন ধরে চিন্তাভাবনা চলছিল, আলাপও হচ্ছিল। সেই সূত্রেই জি-ফাইভ গ্লোবালের সঙ্গে কাজ করা। পুরো জার্নিটাই উপভোগ্য ছিল। স্ক্রিপ্ট লেখা থেকে শুরু করে প্রি-প্রোডাকশন, শুটিং এবং পোস্ট-প্রোডাকশন, পুরো ব্যাপারটাই মজার ছিল। এটা যেহেতু আমার প্রথম ওয়েব সিরিজ, এটার সঙ্গে আমার সম্পৃক্ত হওয়া এবং অভিজ্ঞতাও অন্য রকম ছিল। পুরো প্রক্রিয়াটাই আমি উপভোগ করেছি।’

আলাপচারিতার শেষ অংশে বাংলাদেশে ওটিটির বাজার সম্ভাবনাময় বলে জানিয়েছেন দেশের আলোচিত নির্মাতা মোস্তফা সরয়ার ফারুকী। তবে কাজে লাগাতে হবে সুযোগ। নির্মাতার ভাষ্যে সেটা এমন, ‘আমার গত পাঁচ বছর ধরেই উপলব্ধি করছিলাম ওটিটিই হবে ভবিষ্যৎ। সেটা এই মহামারিতে আরও স্পষ্ট হচ্ছে। মহামারির আগে থেকেই আমরা এই প্ল্যাটফর্ম নিয়ে অনেক লেখালেখি করেছিলাম। বাংলাদেশে শিক্ষিত মধ্যবিত্ত জনগোষ্ঠী বিশাল। তাঁরা ওটিটির গ্রাহক হবেন, অনেকটা নিশ্চিত ভাবেই বলা যায়। এই প্ল্যাটফর্মেই আসলে তুলনামূলক ভালো কাজ করার সুযোগ থাকে। যদি আমরা পাওয়া সুযোগগুলো কাজে লাগাতে পারি, তবে আমাদের এখানে ওটিটির বিশাল সম্ভাবনা রয়েছে।’

‘লেডিস অ্যান্ড জেন্টলম্যান’ সিরিজে আরও অভিনয় করেছেন চঞ্চল চৌধুরী, পার্থ বড়ুয়া, হাসান মাসুদ, সাবেরী আলম, নাদের চৌধুরী, জয়ন্ত চট্টোপাধ্যায়, মামুনুর রশীদ, মারিয়া নূর, ইরেশ যাকেরের মতো তারকা অভিনেতা। সিরিজে আছে ‘পরজীবী শহরের গান’ শিরোনামের একটি গান। নির্মাতার প্রথম লেখা গানে কণ্ঠ দিয়েছেন তরুণ-প্রতিভাবান গায়িকা মাশা ইসলাম। সুর করেছেন সংগীত পরিচালক পাভেল অরিন।

অ্যালেক্সি কসোরুকভের সিনেমাটোগ্রাফিতে বাংলাদেশের এক সাধারণ মেয়ের গল্প উঠে এসেছে সিরিজে। জি-ফাইভ অ্যাপ ও ওয়েবসাইটে সিরিজটি বাংলাদেশের দর্শক ‘লেডিস অ্যান্ড জেন্টলম্যান’ দেখতে পারবেন একেবারে বিনামূল্যে।

সূত্রঃ এনটিভি

2021-07-05