Monday , 26 July 2021
Home / খবর / সৃজিতের সঙ্গে আলোচনায় বসতেও রাজি নন যিশু

সৃজিতের সঙ্গে আলোচনায় বসতেও রাজি নন যিশু


কলকাতা, ১৩ জুলাই – বছরের পর বছর ফ্লপ ছবি হওয়ার পরও যে সাফল্য ধরা দিতে পারে— তার ভালো উদাহরণ কলকাতার যিশু সেনগুপ্ত। প্রয়াত ঋতুপর্ণ ঘোষের হাতেই ক্যারিয়ারে বসন্ত দেখেন তিনি। আর পাকাপোক্ত করেন সৃজিত মুখার্জি। কিন্তু এখন সৃজিতের সঙ্গে ছবি নিয়ে আলোচনায় বসতেও তার আপত্তি!

টলিউডে কান পাতলে শোনা যাচ্ছে, যিশু ও সৃজিতের সম্পর্ক ভালো নেই। যে পরিচালকের ছবি দিয়ে যিশু টলিউডে তার সেকেন্ড ইনিংস মজবুত করেছেন, তার সঙ্গে সমস্যার কারণ কী? এই প্রশ্নই ঘুরপাক খাচ্ছে।

সৃজিত অনেক দিন ধরেই হিন্দু ধর্ম সংস্কারক শ্রীচৈতন্যকে নিয়ে ছবি করতে চান, যার প্রযোজক রানা সরকার। প্রজেক্টটি নিয়ে পরিচালক-প্রযোজক দুজনেই ফের উদ্যোগী হয়েছেন। সামনের বছরের গোড়ার দিকেই ছবিটি শুরু হওয়ার কথা। যার অন্যতম প্রধান চরিত্রে যিশুর কাজ করার কথা ছিল। কিন্তু অভিনেতা নাকি ছবিটি করতে ইচ্ছুক নন।

যিশু নির্মাতাদের জানিয়েছেন, যে প্রজেক্ট আগামী বছর শুরু হবে, সেটি নিয়ে তিনি এখন কোনো রকম প্রতিশ্রুতি দিতে রাজি নন। এ দিকে ইন্ডাস্ট্রির গুঞ্জন, সৃজিতের সঙ্গে কাজ করতে সমস্যা রয়েছে অভিনয়।

যিশুর হাতে হিন্দি, দক্ষিণী দুই ইন্ডাস্ট্রিরই ছবির কাজ রয়েছে। পাশাপাশি তিনি ওয়েব সিরি‌জও করছেন। সে অর্থে অভিনেতা কলকাতার মুখাপেক্ষী নন।

এ প্রসঙ্গে যিশুর সঙ্গে সম্পর্ক খারাপের বিষয়টি উড়িয়ে দেন সৃজিত। তার কথায়, ‘‘অনেকে ভাবছেন এই প্রজেক্টে চৈতন্যদেবের চরিত্রটি যিশুর করার কথা ছিল, তা কিন্তু নয়। অন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রের জন্য প্রযোজকের যিশুকে পছন্দ ছিল, যে চরিত্রে আমি শুরু থেকেই অনির্বাণ ভট্টাচার্যকে চাইছিলাম। যিশু কখনোই আমার প্রথম পছন্দ ছিল না। এখন যেহেতু যিশু ছবিটি করবে না, তাই আমার পছন্দই বহাল থাকছে।”

যিশুর ছবিটি না করার কারণ কী? ‘‘জানি না। রানা ওর সঙ্গে মিটিং করতে চেয়েছিল। কিন্তু ও এখন আলোচনা করতে চায় না। এর পর আমাদের কী বলার থাকতে পারে।’’

টিভিতে চৈতন্যদেবকে নিয়ে নির্মিত ‘মহাপ্রভু’ ধারাবাহিকটি ভীষণ জনপ্রিয়তা পায়। যার মূল চরিত্রে ছিলেন যিশু। সে নস্টালজিয়ার জন্যই তাকে চেয়েছিলেন রানা সরকার।

প্রযোজকের কথায়, ‘‘স্যাটেলাইট রাইটস, স্ট্রিমিং প্ল্যাটফর্মগুলোর সঙ্গে আলোচনার জন্য কাস্টিং লক করে নেওয়া জরুরি। যিশু যেহেতু আলোচনায় রাজি নয়, তাই আমাদের অন্য কিছু ভাবতে হবে।’’

জাতিস্মর, রাজকাহিনী, উমা, এক যে ছিল রাজা — সৃজিতের একাধিক ছবিতে চ্যালেঞ্জিং চরিত্র করেছেন যিশু। কিন্তু পরিচালকের ব্যবহার নিয়ে উষ্মা রয়েছে অভিনেতার। ছবির সেটে সৃজিতের উত্তেজিত হয়ে পড়ার ঘটনা প্রসঙ্গে অবশ্য সবাই জানে।

সৃজিত ও রানার বক্তব্য ছাপা হলেও এ নিয়ে কোনো মন্তব্য করেননি যিশু। তবে তার ঘনিষ্ঠমহলের মতে, যিশু এই মুহূর্তে খুব বাছাই করে বাংলা ছবি করতে চান। এ ছাড়া সৃজিতের কিছু ব্যবহারে তিনি আহত বলেই হয়তো পরিচালকের সঙ্গে কাজ করতে আগ্রহী নন।

এম এউ, ১৩ জুলাই

2021-07-13